অভুক্ত প্রাণীদের পাশে সিটি মেয়র :: আমরা মানুষের জন্য সাহায্যে নিয়ে যেভাবে এগিয়ে যাচ্ছি অসহায় পশু-পাখীদেরও খাবার দিয়ে বাঁচিয়ে রাখা উচিত

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীন আজ দুপুরে নগরীর কাজীর দেউড়িস্থ স্টেডিয়াম এলাকার অভুক্ত ভবঘুরে কুকুরদের খাবার দিয়েছেন। সিটি মেয়রের উদ্যোগে কুকুরদের জন্য প্রত্যেক পাড়ায় মহল্লায় আজ প্রায় ১ মাস যাবত এই রান্না করা খাবার বিতরণ চলছে। রান্নাকরা খাবারগুলো প্রতিদিন বিভিন্ন পশুপ্রেমী ব্যক্তি ও সংশ্লিষ্ট সংগটনের মাধ্যমে পরিবেশন করা হয়ে থাকে। খাবার দেয়াকালে মেয়র বলেন, দীর্ঘ প্রায় দুমাস যাবত অঘোষিত লক ডাউনের কারণে দেশের প্রাণীকূল বিশেষ করে কুকুরগুলো অভুক্ত অবস্থায় অসহায়ভাবে দিন পার করছে। দোকাপাট রেস্তোরাঁগুলো বন্ধ থাকায় কুকুরগুলো এখন খেতে না পেয়ে অসহায় হয়ে পড়ছে। জ্বালাতন করছে পাড়া প্রতিবেশিদের। আমাদের চিন্তা করতে হবে তাদেরও প্রান আছে,বেঁচে থাকার জন্য তাদেরও খাদ্যের প্রয়োজন। স্বাভাবিকাবস্থায় এই কুকুরগুলো প্রতিদিন গড়ে এক কেজি ময়লা আবর্জনা খেয়ে আমাদের পরিচ্ছন্ন কাজের অংশীদারিত্ব করছে। সৃষ্টির সেরা জীব হিসেবে আমরা মানুষের জন্য সাহায্য নিয়ে যেভাবে এগিয়ে যাচ্ছি সেভাবে অসহায় পশু-পাখী, বিড়াল-কুকুরকেও আমাদের খাবার দিয়ে বাঁচিয়ে রাখা উচিত। কারণ পৃথিবীর ভারসাম্য রক্ষায় প্রত্যেক প্রাণীরই প্রয়োজন রয়েছে। আর কুকুরতো প্রভুভক্ত একটি প্রানীও বটে। খাবার দেয়ার সময় সাংবাদিক আলী আব্বাস, ফারুক,ছাএনেতা দিদারুল আলম, হেলাল উদ্দিন, যুবলীগ নেতা মামুনুর রশীদ মামুন, আনিছ, জসিম উদ্দিন, পেয়ারু, মোশাররফ হোসেন লিটন,টিপু দাশ প্রমূখ সিটি মেয়রের সাথে ছিলেন।

পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের পার্বত্য চট্টগ্রাম শাসনবিধি আইন বহাল রাখার ষড়যন্ত্র প্রতিরোধে আশু করণীয় শীর্ষক-গোলটেবিল আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত : উপনিবেশিক ও অসাংবিধানিক ১৯০০ সালের পার্বত্য চট্টগ্রাম শাসনবিধি আইন বহাল রাখার ষড়যন্ত্র প্রতিরোধ করতে হবে–সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বীর প্রতীক এমপি

পার্বত্য এলাকায় খ্যাতিমান সাংবাদিক হিসেবে বসুন্ধরা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্ত : পার্বত্য চট্টগ্রামের সংবাদপত্রের পথিকৃত, চারণ সাংবাদিক দৈনিক গিরিদর্পণ সম্পাদক এ,কে,এম মকছুদ আহমেদের ৮০তম জন্মদিন আজ